বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত

বরিশাল প্রতিনিধি: বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে গত পাঁচ মাস ধরে উপাচার্য, কোষাধ্যক্ষ, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকসহ গুরুত্বপূর্ণ অনেক পদই শূন্য। ছয়টি অনুষদের মধ্যে চারটির ডিন পদেও কেউ নেই। এ অবস্থায় বাধ্য হয়ে স্থগিত করা হয়েছে ভর্তি পরীক্ষা।

চলতি বছরের ২৬শে মার্চ স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ না জানানোয় বিক্ষোভ করে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের সে সময়ের উপাচার্য এসএম ইমামুল হক শিক্ষার্থীদের ‘রাজাকারের বাচ্চা’ বলে কটূক্তি করলে আন্দোলনে নামেন শিক্ষার্থীরা। তোপের মুখে এরপর আর বিশ্ববিদ্যালয়ে ফেরা হয়নি তার।

গত ২৭শে মে ইমামুল হকের মেয়াদ শেষ হলে উপাচার্যের দায়িত্ব পালন করছিলেন ট্রেজারার একেএম মাহাবুব হাসান। কিন্তু গত ৭ই অক্টোবর তার চুক্তির মেয়াদও শেষ হয়ে যায়। পদধারী কেউ না থাকায় বাধ্য হয়ে স্থগিত করা হয় বিশ্ববিদ্যালয়ের এবারের ভর্তি পরীক্ষা।